এই ৯টি নির্দেশ মেনে স্কুলের কার্যকর্ম চালাতে হবে

আগামী, ২১শে সেপ্টেম্বর থেকে দেশের নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর স্কুল গুলি খুলে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্র। তার আগে ৮ইসেপ্টেম্বর অর্থাৎ মঙ্গলবার, কেন্দ্রের তরফ থেকে স্কুল খোলা সম্পর্কিত নতুন কিছু বিধিনিষেধ সম্পর্কে জানিয়ে অপর একটি নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়েছে। সেখানে, স্কুল খোলার পর ক্লাস চলাকালীন বিধি নিষেধ মেনে চলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সরকারের তরফ থেকে প্রকাশিত নতুন নির্দেশিকা অনুযায়ী, স্কুল চলাকালীন প্রত্যেক পড়ুয়ার মধ্যে অন্তত পক্ষে ৬ ফুটের দূরত্ব রাখতেই হবে। শুধু তাই নয়, প্রতি এক ঘন্টা অন্তর অন্তর প্রত্যেক ছাত্র-ছাত্রীকে অন্ততপক্ষে ৪০ থেকে ৫০ সেকেন্ড অব্দি হাত ধুতে হবে। পাশাপাশি প্রত্যেক পরিবার সঙ্গে মাস্ক বা ফেশ শিল্ড থাকা বাধ্যতামূলক।

পাশাপাশি বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে, যত্রতত্র থুতু বা কফ ফেলা যাবে না। হাঁচি বা কাশি সময় মুখ ঢেকে রাখতে হবে এবং শরীরে কোনো রকম রোগ লক্ষণ দেখা দিলে চেপে রাখা যাবে না। অবিলম্বে স্কুল কর্তৃপক্ষকে জানাতে হবে।

উল্লেখ্য, দীর্ঘ ছয় মাস বন্ধ থাকার পর, অবশেষে করোনা পরিস্থিতির মধ্যেই নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত স্কুল খোলার নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্র। তবে ছাত্র-ছাত্রীদের অভিভাবকের অনুমতি থাকা আবশ্যিক।

করোনা মহামারীর প্রকল্পে যাতে ছাত্র-ছাত্রীদের স্বাস্থ্য সংকটের মুখে না পড়ে যায়, সেজন্য এতদিন স্কুল গুলি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল কেন্দ্র। কিন্তু এতে ছাত্র-ছাত্রীদের পড়াশোনায় বেশ ক্ষতি হচ্ছে।

স্কুল কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে অনলাইন ক্লাসের আয়োজন করা হলেও স্মার্টফোন এবং ইন্টারনেট পরিষেবার অভাবে অনেকেই শিক্ষালাভ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন। তাই অবশেষে নির্দিষ্ট বিধি-নিষেধের বেড়াজালে ধীরে ধীরে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলিকে চালু করার চেষ্টা করছে কেন্দ্র।

করোনায় সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে স্কুল খোলা নিয়ে একগুচ্ছ নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে, একনজরে জেনে নিন…

১। ৬ ফিট দূরত্ববিধি মেনে চলতে হবে।

২। মাস্ক পরতে হবে বা মুখ ঢেকে রাখতে হবে।

৩। পঠনপাঠনের সামগ্রী জীবাণুনাশ করতে হবে।

৪। শৌচাগার পরিষ্কার রাখতে হবে।

৫। পঠনপাঠন শুরুর আগে ও শেষ হওয়ার পর ক্লাসরুম, ল্য়াবরেটরিতে জীবাণুনাশ করতে হবে।

৬। বারবার হাত ধুতে হবে, স্য়ানিটাইজ করতে হবে।

৭। স্কুলে বায়োমেট্রিকের ব্য়বহার আপাতত বন্ধ রাখা হবে।

৮। কনটেনমেন্ট জোনে বসবাসকারী পড়ুয়া ও স্কুলের কর্মীদের আসতে বারণ করা হয়েছে।

৯। এসি ব্য়বহার করা হলে কেন্দ্রের গাইডলাইন মেনে তাপমাত্রা ২৪-৩০ ডিগ্রির মধ্য়েই রাখতে হবে।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.